• আপডেট টাইম : 18/11/2020 09:42 AM
  • 97 বার পঠিত
  • বিশেষ প্রতিবেদক
  • sramikawaz.com

 সৌহার্দ, শান্তিপূর্ণ ও উৎসব মুখর পরিবেশের মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হলো আশুলিয়ার জিটিএ স্পোর্টস লি. এর শ্রমিক ইউনিয়নের নির্বাচন। বাংলাদেশ গার্মেন্টস এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিয়াল শ্রমিক ফেডারেশনের আশুলিয়া অফিসে এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।
গতকাল মঙ্গলবার নির্বাচনে সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। বাকী পদগুলো বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত হয়। নির্বাচনে সর্বোচ্চ ১২৬টি ভোট পেয়ে বাবুল হোসেন সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দি সোলাইমান হোসেন পান ১২২টি ও ওয়াজ কুরনী পান ২ ভোট। মোট ভোটের সংখ্যা ২৫৭। ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন ২৫৪ জন।
জিটিএ স্পোটর্স কারখানার শ্রমিক ইউনিয়নের গঠনতন্ত্র ৯টি পদের মধ্যে ৮টি বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত হয়েছে। বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় নির্বাচিত কমিটির আট শ্রমিক নেতারা হলেন, সভাপতি- তুহিন মিয়া, সহসভাপতি- মো. দুলাল মিয়া, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক- মো. সফিকুল ইসলাম, কোষাধাক্ষ্য- মো. সুমন আলী, প্রচার সম্পাদক- মো. রহিজ উদ্দিন, দপ্তর সম্পাদক- মো. সাদ্দাম হোসেন এবং কার্যনির্বাহী সদস্য- মো. সাচ্চু মিয়া।
গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নির্বাচনের জন্য যথারীতি নির্বাচন কমিশন গঠিত হয়। এ নির্বা চন পরিচালনা করেন। নির্বাচন কমিশনার হাসানুজ্জামান রাহিকের নেতৃত্ব তিন সদস্য বিশিষ্ট কমিশন নির্বচনের দায়িত্ব পালন করেন। নির্বাচন কমিশনের বাকী দুই সদস্য হলেন- মুক্তার হোসেন ও খুরশিদ আলম।
এ ব্যাপারে বাংলাদেশ গার্মেন্টস এন্ড ইন্টাস্ট্রিয়াল শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি বাবুল আক্তার শ্রমিক আওয়াজকে বলেন, পুরোপুরি গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচনের সকল পদ্ধতি, রীতি-নীতিও এ নির্বাচনে প্রতিপালন করা হয়। নির্বাচনের আগে প্রার্থীকে কেন্দ্র করে শ্রমিকদের মধ্যে বিভক্তি থাকলেও নির্বাচনের ফলাফলের পরপরই আবার সবাই এক হয়ে যায়। বিজয়ী ও বিজিতের মধ্যে যে রেষারেষি থাকে, নির্বাচন মানি না-মানবো না শ্রমিকদের মধ্যে এ ধরণের আচজরণ ছিল না। বিজয়ের পর পর এক পক্ষ আরেক পক্ষকে বরন কওে নেয়। ভেদাভেদ ভুলে যায়।
শ্রমিকদের এই নির্বাচনে আরও একটি দিক ছিল, শ্রমিক নেতারা বিজয়ী হওয়ার পরই বিজয়-বক্তব্য দেয়। বিজয়ী বাবুল হোসেন শ্রমিকদের উদ্দেশ্যে বলেন, আমি মাত্র দুই ভোটের ব্যবধানে জিতেছি। তার মানে যিনি বিজয়ী হননি তারও আমার সমান সমার্থন আছে। নিয়ম অনুযায়ী আমি সাধারণ সম্পাদক হলেও কার্যত আমরা দুজনই সাধারণ সম্পাদক। আমরা সবাই মিলে শ্রমিকদের জন্য কাজ করবো।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...