sa.gif

মজুরি বোর্ডে মালিক ও শ্রমিক প্রতিনিধির প্রস্তাব পোশাক শ্রমিকদের প্রত্যাখ্যান
আওয়াজ প্রতিবেদক :: 16:03 :: Wednesday July 25, 2018 Views : 40 Times

অদ্য ২৫ জুলাই, ২০১৮ ইং সকাল ১১.০০ ঘটিকায় দেশের প্রাচীন গার্মেন্টস শ্রমিকদের জাতীয় প্লাটফর্ম বাংলাদেশ গার্মেন্টস শ্রমিক ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে এক মানববন্ধন কর্মসূচি পরিষদের সমন্বয়ক মাহাতাব উদ্দিন সহিদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয় কর্মসূচিতে পরিষদের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ যথাক্রমে আমিরুল হক আমিন, মো. তৌহিদুর রহমান, সালাউদ্দিন স্বপন, এম. দেলোয়ার হোসেন, মো. বজলুর রহমান বাবলু, মো. কামরুল হাসান, মো. মোস্তফা, কাজী মোহাম্মদ আলী, আরাফাত জাকারিয়া সঞ্চয় প্রমুখ।

সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন বিলস্’র নির্বাহী পরিচালক সৈয়দ সুলতান উদ্দিন আহমদ, গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক জলি তালুকদার, গার্মেন্টস শ্রমিক অধিকার আন্দোলনের সমন্বয়কারী এড. মাহবুবুর রহমান ইসমাইল, বাংলাদেশ গার্মেন্টস শ্রমিক শিল্প রক্ষা ও জাতীয় মঞ্চের সমন্বয়কারী আবুল হোসাইন।

কর্মসূচিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, আমরা গত ১৬ জুলাই, ২০১৮ ইং গামেন্টস শ্রমিকদের মজুরি পূণনির্ধারনের জন্য গঠিত নি¤œতম মজুরি বোর্ডের সভায় মালিক প্রতিনিধী কর্তৃক ৬৩৬০ টাকা ও শ্রমিক প্রকিনিধী কর্তৃক ১২০২০ টাকা প্রস্তাব পেশ করায় হতবাক ও বিস্মিত হয়েছি। ২০১৩ সালে তৎকালীন মজুরি ঘোষনার পরে প্রতি বছর ৫ভাগ হারে মজুরি ইনক্রিমেন্ট হওয়ার কথা সে হারে ইতিমধ্যে ৪ বছরে ২০ ভাগ মজুরি ইনক্রিমেন্ট হয়ে থাকলে বর্তমানে ৭ম গ্রেডের শ্রমিকদের ৬৪০০ টাকা মজুরি উন্নিত হয়েছে। কিসের ভিত্তিতে ও যুক্তিতে মালিক পক্ষ এহেনো অন্তসার শূণ্য প্রন্তাব পেশ করলো ইহা আমাদেও কাছে বোধগম্য নয়। অপর দিকে দেশের প্রায় অধিকাংশ জোট ও সংগঠনের ১৬ হাজার টাকার দাবীকে পাশ কাটিয়ে শ্রমিক প্রতিনিধী ১২০২০ টাকার প্রস্তাব পেশ করে দেশের শ্রমিকদের সাথে প্রতারনা করেছে। পরিষদ আজকের এই কর্মসূচি থেকে উভয়ের প্রন্তাব ঘৃনাভরে প্রত্যাখ্যান করছে। কর্মসূচিতে নেতৃবৃন্দ বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি শুধুমাত্র পোশাক মালিকদের একতরফা বক্তব্য শুনে কোনরুপ সিদ্ধান্ত নিবেন না কারণ আপনি ১৬ কোটি মানুষের প্রধানমন্ত্রী আপনার ৪০ লক্ষ পোশাক শ্রমিকের জীবন জীবিকার প্রশ্নে শোভন একটি মজুরি জাতীয় নির্বাচনের বছরে ঘোষনা করবেন বলে শ্রমিকরা আশাবাদী। ইতিমধ্যে সরকার পোশাক মালিকদের সরকারের পক্ষ থেকে সকল প্রকার সুযোগ-সুবিধা প্রদানের পরেও তাদের সমস্যা ও চাওয়া-পাওয়ার কোন সীমারেখা নাই। নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে ১৬ হাজার টাকা মজুরি ঘোষনার দাবী জানিয়ে বলেন শিল্পে কোন রকম অসন্তোষ দেখা দিলে মালিক পক্ষ দায়ী থাকবে। দেশের সকল শ্রমিক সংগঠনকে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানান।



Comments





Pakkhik Sramik Awaz
Reg: DA5020
News & Commercial:
85/1 Naya Paltan, Dhaka 1000
email: sramikawaznews@gmail.com
Contact: +880 1972 200 275, Fax: +880 77257 5347

Legal & Advisory Panel:
Acting Editor: M M Haque
Editor & Publisher: Zafor Ahmad

Developed by: Expert IT Solution