sa.gif

জঙ্গি পৃষ্ঠপোষকতার অভিযোগে গার্মেন্ট মালিক গ্রেফতার
আওয়াজ ডেস্ক :: 08:16 :: Monday June 12, 2017 Views : 18 Times

জঙ্গিবাদে অর্থ ও অস্ত্র সহায়তা দেয়ার অভিযোগে নারায়ণগঞ্জ থেকে এক গার্মেন্টস মালিককে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।১০ জুন  শনিবার রাতে জিম টেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অভিযুক্ত ইমরান ও তার গাড়ি চালক শামীমকে রুপগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করা হয়।

রোববার কারওয়ান বাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে ইমরানের কারখানা ও বাসা থেকে অস্ত্র, গোলাবারুদ ও দাওয়াতি উপকরণ উদ্ধার হয়েছে বলে দাবি করা হয়।

র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান সংবাদ সম্মেলনে বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ইমরান আহমেদ জঙ্গিবাদে সম্পৃক্ততার অভিযোগ স্বীকার করেছেন। তিনি কেন্দ্রীয় দাওয়াবিষয়ক কমিটির শুরা সদস্য। তিনি জঙ্গিবাদে উদ্বুদ্ধ হন ২০১২ সালে।
ইমরান আহমেদের সম্পৃক্ততা কতটুকু সে সম্পর্কে মুফতি মাহমুদ খান আরও বলেন, আতিয়া মহলে অভিযানের আগে সাজিদ নামের এক ব্যক্তি পালিয়ে যান। তিনি ঢাকায় এসে ইমরান আহমেদের মহাখালীর বাসায় আশ্রয় নিয়েছিলেন। সাজিদ জেএমবির নতুন আমিরের সবচেয়ে ঘনিষ্ঠ সহচর। নতুন এই আমিরের নাম আবু মুহারিব।

জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাব জানতে পেরেছে, জেএমবি এখন দাওয়াতি কার্যক্রমে গুরুত্ব দিচ্ছে বেশি। ইমরান গুলশান, বনানী ও মিরপুর এলাকায় জেএমবিতে সদস্য সংগ্রহের কাজ করতেন। এ ছাড়া দেশের ১০টি জেলায় দাওয়াতি কর্মকাণ্ড সমন্বয়ের কাজও তিনি করছিলেন বলে জানিয়েছেন।
জঙ্গি পৃষ্ঠপোষকতার অভিযোগে গার্মেন্ট মালিক গ্রেফতার

জঙ্গিবাদে অর্থ ও অস্ত্র সহায়তা দেয়ার অভিযোগে নারায়ণগঞ্জ থেকে এক গার্মেন্টস মালিককে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।১০ জুন  শনিবার রাতে জিম টেক্সের ব্যবস্থাপনা পরিচালক অভিযুক্ত ইমরান ও তার গাড়ি চালক শামীমকে রুপগঞ্জ থেকে গ্রেফতার করা হয়।

রোববার কারওয়ান বাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে ইমরানের কারখানা ও বাসা থেকে অস্ত্র, গোলাবারুদ ও দাওয়াতি উপকরণ উদ্ধার হয়েছে বলে দাবি করা হয়।

র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান সংবাদ সম্মেলনে বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ইমরান আহমেদ জঙ্গিবাদে সম্পৃক্ততার অভিযোগ স্বীকার করেছেন। তিনি কেন্দ্রীয় দাওয়াবিষয়ক কমিটির শুরা সদস্য। তিনি জঙ্গিবাদে উদ্বুদ্ধ হন ২০১২ সালে।
ইমরান আহমেদের সম্পৃক্ততা কতটুকু সে সম্পর্কে মুফতি মাহমুদ খান আরও বলেন, আতিয়া মহলে অভিযানের আগে সাজিদ নামের এক ব্যক্তি পালিয়ে যান। তিনি ঢাকায় এসে ইমরান আহমেদের মহাখালীর বাসায় আশ্রয় নিয়েছিলেন। সাজিদ জেএমবির নতুন আমিরের সবচেয়ে ঘনিষ্ঠ সহচর। নতুন এই আমিরের নাম আবু মুহারিব।

জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাব জানতে পেরেছে, জেএমবি এখন দাওয়াতি কার্যক্রমে গুরুত্ব দিচ্ছে বেশি। ইমরান গুলশান, বনানী ও মিরপুর এলাকায় জেএমবিতে সদস্য সংগ্রহের কাজ করতেন। এ ছাড়া দেশের ১০টি জেলায় দাওয়াতি কর্মকাণ্ড সমন্বয়ের কাজও তিনি করছিলেন বলে জানিয়েছেন।



Comments





Pakkhik Sramik Awaz
Reg: DA5020
News & Commercial:
85/1 Naya Paltan, Dhaka 1000
email: sramikawaznews@gmail.com
Contact: +880 1972 200 275, Fax: +880 77257 5347

Legal & Advisory Panel:
Acting Editor: M M Haque
Editor & Publisher: Zafor Ahmad

Developed by: Expert IT Solution